মৌমিতা গুঁইর কবিতা ‘নীলস্বপ্ন’

আমার দুঃখের সূর্য ঝলমল করে আকাশে
রাতের তারারা মিটিমিটি চায়
ভাবসম্প্রসারণের চাঁদ হোক যতই ঝলসানো রুটি, রুটিতে যে বড্ড অরুচি।

মেঘ যদি পিওন হয়, দমকা হাওয়া নিয়ে আসে উড়োচিঠি –
বসন্ত চাই না আমি, অপেক্ষা করছি কালবৈশাখী।

উড়ে যাবে ছাতা,
আমি কিন্তু ইষ্টনাম জপতে জপতে ভাবব ডুবল বুঝি তরী –
কেমন মজা হবে ভারী?
উত্তাল সমুদ্রে কাটব সাঁতার, সে কি মুখের কথা?

সে রাতে ঘুম নামবে না চোখে,
হয়ত সময় থেমে যাবে কোথাও কোথাও –
সে যাক, গদ্য যে আমার ভালো লাগে না।
বড্ড নিত্যনৈমিত্তিক, একঘেয়ে,
কবিরা কলম ধরুক তার চেয়ে।

ওহ বালিকা, মেঘবালিকা নাকি? সে তুই যেই হোস, একটা ব্লেড লুকিয়ে রাখিস তো,
মুঠো মুঠো আম কুড়োতে যাব, কারেন্ট নুন দিয়ে মেখে মজাসে খাব।

রেডিও টা বড্ড বাজে,শুধু রোমাঞ্চ করতে বারণ করে,
আমার অবশ্য ভ্রূক্ষেপ নেই কিছুতেই
যাব তো পাশের মাঠে, আম কুড়িয়ে ফিরেই আসব সেই ঘরে।
ওহ, মেয়েবেলা বড্ড মন কেমন করে।

You may also like...

Leave a Reply